Pages Menu
TwitterRssFacebook
Categories Menu

Posted by on Apr 4, 2014 in ছোট্টমনি, জেনে রাখা ভাল, হাটি হাটি পা |

শিশুর স্বাভাবিক তাপমাত্রা

শিশুর স্বাভাবিক তাপমাত্রা

শিশুর অসুখে জ্বর খুব সচরাচর একটি লক্ষণ। তবে কখনো কখনো তাপমাত্রা কমে যাওয়া, অর্থাৎ হাইপো থারমিয়া ঘটতে দেখা যায়। বিশেষত নবজাতক শিশুর ক্ষেত্রে এটা বেশি হয়ে থাকে।

 

এক বছরের কম বয়সী শিশুর জ্বর নির্ণয়ে পেটের ওপর উরু ভাঁজ করে গ্রোইনে থার্মোমিটার রেখে তাপমাত্রা নেওয়া হয়, যা ৩৭ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেড বা ৯৮.৪ ডিগ্রি ফারেনহাইট। কিংবা পায়ুপথে রেকটাল থার্মোমিটার ব্যবহার করে তাপমাত্রা মাপা হয়, যার স্বাভাবিক মান হবে ৩৭.৫ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেড বা ৯৯.৫ ডিগ্রি ফারেনহাইট। বড় বাচ্চার তাপমাত্রা নির্ণয়ে বগলের নিচে থার্মোমিটার রেখে রিডিং নেওয়া বেশি সুবিধাজনক।

 

২৯-৪৩ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেড বা ৮৫-১০৯ ডিগ্রি ফারেনহাইট পর্যন্ত রেখাঙ্কিত লো রিডিং থার্মোমিটার বাচ্চাদের জন্য বেশি কার্যকরি। এতে শিশুর কম তাপমাত্রা বা অত্যধিক শীতল হয়ে যাওয়ার মত গুরুতর পরিস্থিতি আগেভাগে শনাক্ত করা সম্ভব।

 

যারা প্রিম্যাচিউর ইনফ্যান্ট তাদের দেহের তাপমাত্রা পূর্ণ গর্ভকাল পাওয়া ইনফ্যান্টের তুলনায় ১ ডিগ্রি ফারেনহাইট নিচে অবস্থান করে।